Home » Internet » search engine কি ? কি ভাবে কাজ করে

search engine কি ? কি ভাবে কাজ করে

Search engine

internet হলো informaion এর একটি সমুদ্র ,এবং তার পরেও প্রতিমুহূর্তে এর মধ্যে তথ্য যুক্ত হচ্ছে। আপনি যদি কোনো বিষয়ে জানতে চান বা কোন বিষয় নিয়ে একটু গভীরভাবে চর্চা করতে চান তবে চান তবে internet থেকে তা খুব সহজেই আপনি পেতে পারেন।

 আপনার জানবার ইচ্ছা এবং internet এর informaion এর মধ্যে যে যোগসুত্র তৈরি হবে সেটি হয় search engine এর মাধ্যমে। আমরা এই আর্টিকেল এ জানার চেষ্টা করব এই search engineটি কি এবং এটি কিভাবে কাজ করে। 

Search engine কী

search engine হল একটি online টুল যার মাধ্যমে যা internet ব্যবহারকারীর দেওয়া কিবোর্ড এর উপর ভিত্তি করে internet এর মধ্য থেকে কিছু তথ্য এনে ব্যবহারকারীকে দেয়।

search engine হল আসলে একাধিক প্রোগ্রাম দিয়ে তৈরি একটি গ্রুপ যা internet ব্যবহারকারী কে internet থেকে জরুরী তথ্য খুঁজে বের করতে সাহায্য করে।

যদি আমরা যদি search engine এর মধ্যে কোন শব্দ দিয়ে search দেই তাহলে search engine সেই শব্দ সম্পর্কিত তথ্য আমাদের সরবরাহ করে, আর যে শব্দটি আমরা search engineএর মধ্যে search দেই তাকে বলা হয় keyward। 

কোন আমরা যখন কোন জিনিস জানবার জন্য search engine এ search দেই তখন সে নিজের dataবেস থেকে বেশ কিছু উত্তর খুঁজে বের করে, এবং তারপর search algorithm তার থেকে উপযুক্ত উত্তরগুলি আমাদের সামনে এনে দেয়।

Search engine কীভাবে কাজ করে?

বিভিন্ন search engine বিভিন্ন ভাবে কাজ করতে পারে তবে মূলত অধিকাংশ search engine যে পদ্ধতি অবলম্বন করে তা হল

  1. Crawling
  2. Indexing
  3. Creating results

Crawling

 প্রতিটি search engine এর নিজস্ব crawler নামক bot আছে, এগুলিকে bot বলা হয় যা  internet এর প্রতিটি website কে স্ক্যান করে । এই ছোট ছোট bot গুলি website এর সমস্ত অংশকে স্ক্যান করে এবং  website সম্পর্কিত সমস্ত তথ্য সংগ্রহ করে।

 এখন প্রশ্ন হলোcrawler এই সাইট গুলোকে খুজে পায় কিভাবে? সাধারণত কোন website কে অন্য website এর সাহায্যে খুঁজে পায়। অর্থাৎ কোন website  যদি হাইপারলিংক এর সাহায্যে অন্য কোন website  কে নির্দেশ করে ইন্ডিকেট করে তবে ই crawler  দ্বিতীয় website টির সম্পর্কে জানতে পারে ।

Indexing

 কোন website কে crawl করার পরে পরবর্তী কাজ হল website  indexing করা। মূলত website  এর একটি online library।

যদি কোন website এর কোন অংশ index না হয়ে থাকে তাহলে সেটি search engine এর মাধ্যমে খুঁজে পাওয়া সম্ভব নয়।

 এই indexing একটি ক্রমাগত চলমান পদ্ধতি।  কিছু নির্দিষ্ট সময় পরপর crawler website কে কল করার জন্য ফিরে আসে এবং নতুন কোন data পেলে সেটিকে index করে।

Creating results

 যখন আমরা search engine এর মধ্যে কোন keyward দিয়ে search দেই তখন search engine  এর algorithm সেই keyword এর উপর ভিত্তি করে  একটি search result তৈরি করে।

Search engine algorithm?

এতক্ষণে আমরা অনেকবার search engine algorithm শব্দ টা শুনেছি, কিন্তু এই search engine algorithm কি আসলে কি?

খুব সহজভাবে বলতে গেলে বলতে হয় search engine algorithm হল একটি ফর্মুলা, যা নির্ধারণ করে ইন্টারনেট ব্যবহারকারী কে তার সার্চ এর ভিত্তিতে কোন রেজাল্ট দেখানো উচিত। 

বিভিন্ন search engine algorithm টিকে নিজেদের মতো করে তৈরি করে, এবং ব্যবহারকারী এটি কখনোই জানতে পারে না যে search engine algorithm কিসের ভিত্তিতে সেই রেজাল্ট ই তাকে দেখাচ্ছে। 

এই search engine algorithm টি ঠিক করে results page এ কোন কোন সাইট কে দেখানো হবে এবং results page এর সাইট গুলির মধ্যে কাকে কার আগে দেখানো হবে।

কিছু জনপ্রিয় search engine

জনপ্রিয়তার দিক থেকে পৃথিবীর সবথেকে জনপ্রিয় search engine  হলো Google। এছাড়াও এখানে আমরা আরও কিছু জনপ্রিয় search engine নিয়ে আলোচনা করলাম।

Google

 বহু বছর ধরে গুগোল ইন্টারনেট ব্যবহারকারীদের সবথেকে জনপ্রিয় সার্চ ইঞ্জিন। গুগলের সার্চ ইঞ্জিন অ্যালগোরিদম সব থেকে উন্নত এছাড়াও গুগোল মেশিন লার্নিং আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স এবং এর মত বেশকিছু অ্যালগরিদম ব্যবহার করে যা ব্যবহারকারীর আগের সার্চ এর ওপর ভিত্তি করে সার্চ রেজাল্ট দেখায়। সারা পৃথিবীর 70% ইন্টারনেট ব্যবহারকারী গুগল ব্যবহার করে।

Baidu

 Baidu কে চীনের Google বলা হয। Baidu আসলে Google এর ই মতন একটি সার্চ ইঞ্জিন। এটি Microsoft, Qualcomm, Intel ইত্যাদি কোম্পানির সঙ্গে AI project এ একসঙ্গে কাজ করে ।

Google এর মত Baidu ও  cloud services, maps, social networking, image and video search ইত্যাদি পরিষেবা প্রদান করে। 

Bing

Bing Microsoft-এর search engine। 2009 সালে MSN Search এবং Windows Live Search এর সঙ্গে একটি নতুন প্রজেক্ট হিসেবে এটিকে launch করে।

এই search engine তৈরি করার পেছনে Microsoft এর মূল উদ্দেশ্য ছিল Google এর প্রতিদ্বন্দ্বী তৈরি করা। এটি আমেরিকার দ্বিতীয় জনপ্রিয় search engine।

Yahoo!

৯০ এর দশকে Yahoo ছিল সবথেকে বেশি জনপ্রিয় search engine এবং email provider। কিন্তু 2000 সালের পরে উদ্ভাবনী দক্ষতার অভাব এটি গুগলের থেকে পিছিয়ে পড়ে। 

DuckDuckGo

DuckDuckGoচলে আসলে একটু অন্য ধরনের search engine। এটি ব্যবহারকারীর privacy রক্ষার উপরে জোর দেয়।

DuckDuckGo, ব্যবহারকারীর আগের search এর উপর ভিত্তি করে কোন result দেখায় না, যার ফলে বিজ্ঞাপন দাতা কোম্পানিগুলো ব্যবহারকারীর গতিবিধি এর ওপর নজর রাখতে পারেনা।